Skip to content

সহজ কিস্তিতে লোন নেওয়ার গুপন সূত্র | Loan BD

    সহজ কিস্তিতে লোন – জিবনে চলার পতে সকল ক্ষেত্রেই আমাদের টাকার প্রয়োজন হয়, এবং আমাদের দেশটি নিন্ম আয়ের দেশ হওয়ার কারণে প্রায় অধিকাংশ যুবক বেকার থাকেন, এমনকি যারা যব কিংবা চাকরি করেন তারাও খুব কম সেলারি পান, যা দিয়ে পরিবারের খরচ ছালাতেই হিমসিম খেতে হয়। তবে বিপত্থি বাদে তখনি যখন তার অন্যান্য প্রয়োজনে টাকা দরকার হয়, যেমনঃ কোন ব্যবসা শুরু করতে, চিকিংশা করাতে, প্রবাসে ভ্রমন করতে অথবা অন্যান্য যেকোন প্রয়োজন। 

    আরও পড়ুনঃ সোনালী ব্যাংক লোন পাওয়ার উপায়

    এই সময়ে তাদের প্রয়োজন হয় কোন ব্যাংক বা এনজিও থেকে লোন নেওয়ার। তবে লোন নিতে গিয়েও প্রিয় ভাই-বোনেরা অনেক সমস্যায় পরেন, কারণ বর্তমান ব্যাংক বা এনজিও থেকে লোন নিতে হলে অনেক ডকুমেন্ট দরকার হয়, এমনকি বাড়ি কিংবা অন্য জমির অরিজিনাল দলিলও জমা রাখতে হয় কোন কোন ব্যাংকের ক্ষেত্রে।  

    এই সকল কারণেই অনেকে সহজ কিস্তিতে লোন নিতে চান, সহজ কিস্তিতে লোন মানে হলো আপনার লোন পাওয়ার পক্রিয়াটি সহজ হবে, এবং কিস্তি প্রধানের নিয়ম যেন খুব বেশি কঠিন না হয়। 

    তাই সহজ কিস্তিতে লোন প্রধান করে এমন কয়েকটি ব্যাংক এবং এনজিও নিয়ে কথা বলব এই পোষ্টে, তাই আপনি যদি সহজ কিস্তিতে লোন পেতে চান তাহলে আমাদের সাথেই থাকুন। 

    সহজ কিস্তিতে লোন প্রধান করা এনজিও

    আমরা নিজেরা অনেক ভাবেই জেনেছি যে সহজ কিস্তিতে লোন প্রধান করার ক্ষেত্রে সরকারি-বেসরকারি ব্যাংক থেকে বিভিন্ন এনজিও গুলো এগিয়ে রয়েছে। 

    দেশের বিভিন্ন এনজিও গুলোতে খুব অল্প ডকুমেন্ট জমা দিলেই সহজ কিস্তিতে লোন পাওয়া যায়। এই এনজিও গুলোর লোন আপনি চাইলে সপ্তাহিক অথবা মাসিক কিস্তিতে পরিশোদ করতে পারবেন। 

    এনজিও গুলো হলোঃ 

    আশা এনজিও

    টিএমএসএস এনজিও (TMSS)

    রিক এনজিও

    এই তিনটি এনজিও খুব সহজ কিস্তিতে লোন প্রধান করে। 

    সহজ কিস্তিতে লোন প্রধান করা ব্যাংক

    সহজ কিস্তিতে লোন হয়তো আরও অনেক ব্যাংক প্রধান করে তবে আমি আপনাদের খুব বেশি ব্যাংকের নাম বলে বিব্রান্ত করতে চাইনা, তাই যেই ব্যাংক সব থেকে সহজ কিস্তিতে লোন প্রধান করে শুধু সেই ব্যাংকের নাম উল্লেখ করছি। 

    সবচেয়ে সহজ কিস্তিতে লোন প্রধান করা সেরা ব্যাংক হলোঃ 

    কৃষি ব্যাংক

    সহজ কিস্তিতে লোন পেতে ডকুমেন্ট দরকার

    আমরা যেই তিনটি এনজিও নাম উল্লেখ করেছি সেগুলো থেকে সহজ কিস্তিতে লোন পেতে আপনার খুব বেশি একটা ডকুমেন্ট দরকার হবেনা, 

    এনজিও থেকে লোন পেতে দরকার

    এনজিও গুলো থেকে সহজ কিস্তিতে লোন পাওয়ার জন্য শুধু মাত্র আপনার নিজের কিছু সাধারণ তথ্য এবং নমিনির সাধারণ তথ্য প্রয়োজন। এই এনজিও গুলো থেকে লোন নিতে আপনার বা আপনার নমিনির কোন জমির দলিল জমা দিতে হবে না। 

    তবে এই এনজিও গুলো থেকে লোন নিতে আপনার কিছু টাকা জামানত রাখতে হবে, যেটা আপনি লোন দিয়ে শেষ করার পর আবারও ফিরত পেয়ে যাবেন। 

    যেসব ডকুমেন্ট এবং যোগ্যতা দরকারঃ

    • আপনার এবং নমিনির ভোটার আইডি কার্ড,
    • আপনার এবং নমিনির পাসপোর্ট সাইজ ছবি,
    • আপনার এবং নমিনির অবশ্যই ব্যাংক অ্যাকাউন্ট থাকতে হবে, 
    • আপনার এবং নমিনির ব্যাংক চেক এর দুই থেকে তিনটি করে পাতা দিতে হবে, 
    • চেয়ারম্যান মহাশয় কৃতক চেয়ারম্যান সার্টিফিকেট, 
    • কোন কোন ক্ষেতে জমির পর্চা বা দলিল জমা দেওয়া লাগতে পারে, তবে অধিকাংশ ক্ষেতে পর্চা এবং দলিল দরকার হয়না, 
    • আপনি মাসে কত টাকা ইনকাম করেন সেটাও দেখা হবে, 
    • আপনার ইনকামের উপর নিরবর করে আপনি কত টাকা লোন নিতে পারবেন। 
    • আপনি যদি কোন যায়গায় যব করে থাকেন তাহলে সেখানকার রশিদ প্রয়োজন হবে। 
    • এনজিও লোন ১ বছরের মধ্যে পরিশোদ করতে হবে, 
    • সপ্তাহিক এবং মাসিক কিস্তি প্রধানের সুযোগ রয়েছে,

    কৃষি ব্যাংক সহজ কিস্তিতে লোন এবং প্রয়োজনীয় তথ্য

    কৃষি ব্যাংক এর দুটি লোন পদ্ধতি রয়েছে সেগুলো হলোঃ শস্য ঋণ এবং মেয়াদি ঋণ। 

    মেয়াদি ঋণের মধ্যে রয়েছে আবার আরও তিনটি ঋণ, সেগুলো হলোঃ স্বল্প মেয়াদী ঋণ, মধ্যম মেয়াদী এবং দীর্ঘ মেয়াদী ঋণ। 

    সব মিলিয়ে কৃষি ব্যাংক চারটি বিভাগে লোন দিয়ে থাকে, এর মধ্যে শস্য ঋণ পাওয়া খুবি সহজ, 

    আপনি যদি কোন শস্য ফলন করার জন্য লোন নিতে চান তাহলে কৃষি ব্যাংক থেকে শস্য লোন নিতে পারবেন একদম সহজে।

    শস্য ঋণ পেতে দরকারঃ 

    • আপনার ভোটার আইডি কার্ড ফটোকপি,
    • আপনার দুইকপি পাসপোর্ট সাইজের ফটো,
    • আপনার এলাকার চেয়ারম্যান সাহেব কৃতক সার্টিফিকেট, 
    • আপনি ফসল ফলাতে চান এটা প্রমান করতে হবে, 

    ব্যাস শস্য ঋণ নিতে মাত্র এই দুই-তিনটি ডকুমেন্ট দরকার। খুবি সহজ কিস্তিতে লোন দেওয়া হয়। 

    এই লোনের কিস্তি আপনাকে সপ্তাহে বা মাসে একবার দিতে হবেনা, এই লোন নিয়ে ফসল ফলানোর পর একদম শেষ সময়ে একসাথে পুর ঋণ দিতে পারবেন। 

    আপনি যদি শস্য লোন নিতে চান তাহলে কৃষি ব্যাংকের এই লোন সেবা আপনার প্রথম পছন্দে রাখতে পারেন। 

    এছাড়াও কৃষি ব্যাংকের মেয়াদী লোনের মধ্যে থাকা স্বল্প মেয়াদী ঋণ এবং মধ্যম মেয়াদী ঋণও খুব সহজ কিস্তিতে লোন দেওয়া হয়। 

    তবে মেয়াদী লোন গুলো পেতে আরও কিছু ডকুমেন্ট আপনাকে জমা দিতে হবে, তবে আপনি এই ক্ষেত্রে আপনাকে জমির দলিলও জমা দিতে হতে পারে। 

    বিকাশ অ্যাপে সহজ কিস্তিতে লোন

    সিটি ব্যাংক বিকাশ অ্যাপের মাধ্যমে ২০ হাজার টাকা সহজ কিস্তিতে লোন প্রধান করে থাকে, তবে এরজন্য অবশ্যই আপনার বিকাশ অ্যাকাউন্টটি ফিঙ্গারপ্রিন্ট প্রধান করার মাধ্যমে খুলা হতে হবে, অর্থাৎ আপনি যদি মোবাইল অ্যাপ দিয়ে নিজে নিজেই বিকাশ অ্যাকাউন্ট খুলে থাকেন তাহলে আপনি লোন পাওয়ার অপশনটি পাবেন না। 

    তারপর লোন পাওয়ার জন্য আপনার বিকাশ অ্যাকাউন্টে সব সময় টাকা জমা রাখতে হবে, এবং বেশি বেশি করে সেন্ড মানি, ক্যাশ আউট এবং ক্যাশ ইন করতে হবে। 

    এইভাবে অনেক লেনদেন করার পর যখন তারা মনে করবে যে আপনি লোন পাওয়ার জন্য যোগ্য তখনি আপনি লোন নিতে পারবেন। 

    বিকাশ অ্যাপ থেকে লোন নেওয়ার জন্য আপনার বিকাশ অ্যাপে প্রবেশ করুন তারপর পিন দিয়ে হোম পাইজে যান> সেখান থেকে লোন মেনুতে ছ্যাপ দিন। 

    আপনি যদি লোন পাওয়ার জন্য যোগ্য হোন তাহলে এখানে দেখতে পারবেন এবং লোন নিতে চাইলে সম্মতি দিবেন। আপনার কিছু দিতে হতে পারে, তারপর লোনটি গ্রহন করুন। এরপরেই দেখতে পারেবন লোনটি আপনার বিকাশ ক্যাশ এমাউন্টে যোগ হয়ে গিয়েছে। 

    বিকাশের এই লোনটি আপনাকে মাসিক কিস্তিতে সুদ করতে হবে। 

    উপসংহার

    সহজ কিস্তিতে লোন দেওয়ার অনেক এনজিও এবং ব্যাংক রয়েছে তবে আমরা যেই এনজিও এবং ব্যাংক গুলো নিয়ে কথা বলেছি এই গুলো তার প্রথম সাড়িতেই থাকবে, সহজ কিস্তিতে লোন নেওয়ার জন্য আপনি এই এনজিও এবং ব্যাংক গুলোতে যোগাযোগ করুন। 

    পরিশেষে বলতে চাই লোন দেওয়া-নেওয়া এবং লোন নিতে সাহায্য করা সব কিচুই হারাম। তাই লোন থেকে দূরে থাকুন কারণ এর রয়েছে কঠিন সাস্তি। দুনিয়ার জীবন থেকে পরকাল গুরুত্বপূর্ণ বন্ধু। তাই দুনিয়ার জীবনে অনেক বেশি কষ্ট হলেও লোন থেকে দূরে থাকুন।

    FAQs

    সহজ কিস্তিতে লোন এর মানে কি?

    সহজ কিস্তিতে লোন এর মানে বেশ কয়েকটি হতে পারে, যেমনঃ – লোনের জন্য আবেদন করতে অল্প ডকুমেন্ট প্রয়োজন হয়, লোন ইন্টারেস্ট রেট কম হয়, অল্প দিনের মধ্যে লোন প্রসেসিং করা হয়, কিস্তি পরিশোদ করার সময়সীমা সহনশীল হয় বা বেশি সময় পাওয়া যায়।

    সহজ কিস্তিতে লোন প্রধান করে কোন এনজিও?

    সহজ কিস্তিতে লোন প্রধান করে তিনটি এনজিও সেগুলো হলোঃ আশা এনজিও, টিএমএসএস এনজিও (TMSS), এবং রিক এনজিও। তবে এগুলোর মদ্ধেও সবচেয়ে সহজ কিস্তিতে এবং খুব সহজে অল্প দিনের মধ্যেই লোন প্রধান করে টিএমএসএস এনজিও। আপনার এলাকায় যদি এই তিনটি এনজিও থাকে তাহলে আপনি টিএমএসএস এনজিওতে চেষ্টা করতে পারেন, কারণ তারা খুব সহজেই সহজ কিস্তিতে লোন প্রধান করে।

    সহজ কিস্তিতে লোন প্রধান করে কোন ব্যাংক?

    বাংলাদেশের কোন ব্যাংকই সহজ কিস্তিতে লোন প্রধান করেনা, তবে আপনি যদি স্বল্প আকারে কৃষি ব্যাংক থেকে শস্য লোন নিতে চান তাহলে কৃষি ব্যাংক এই লোন খুব সহজেই প্রধান করে থাকে। কৃষি ব্যাংকের এই শস্য লোনের জন্য তেমন কোন ডকুমেন্ট সাবমিট করতে হয়না, শুধু মাত্র সাধারণ কিছু ডকুমেন্ট দিলেই কৃষি এই লোন প্রধান করে, সাধারণ ডকুমেন্ট যেমনঃ – ভোটার আইডি কার্ড, ছবি, এবং একজন নমিনি।

    এছাড়াও কৃষি ব্যাংক সহজ কিস্তিতে লোন প্রধান করে, কৃষি ব্যাংক শস্য লোন আপনি চাইলে কিস্তির মাধ্যমে না দিয়ে একেবারে ফসল ফলিয়ে বিক্রি করার পর একটি নির্দিষ্ট সময়ে দিতে পারবেন।

    x